বুধবার ১২ জুন ২০২৪, ২৯শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সবার নজর কাড়ছে ৩১ মণের ‘বাহাদুর’

প্রকাশিত : ০৫:৪৬ অপরাহ্ণ, ৮ জুলাই ২০২২ শুক্রবার ১৬৯ বার পঠিত

অনলাইন নিউজ ডেক্স :

পবিত্র ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে কুরবানির জন্য প্রস্তুত ‘বাহাদুর’ নামের একটি ষাঁড় সবার নজর কেড়েছে। প্রতিদিন বিভিন্ন এলাকা থেকে লোকজন ষাঁড়টি দেখতে আসছেন। আসন্ন কুরবানির ঈদ উপলক্ষ্যে বাহাদুরের দাম চাওয়া হয়েছে ১২ লাখ টাকা।

অস্ট্রেলিয়ান ফ্রিজিয়ান জাতের এ ষাঁড়টি পালন করছেন নাটোরের বড়াইগ্রামের জোনাইল গ্রামের কলেজ শিক্ষক মাহমুদ হাসান মুক্তা। তিনি ২০১০ সালে শখের বশে ৪টি গরু নিয়ে খামার শুরু করেন। বর্তমানে তার খামারে ১০টি গাভি, বকনা গরু ৮টি, ষাঁড় বাছুর ৪টি আর একটি ষাঁড় রয়েছে। মূলত গাভি পালন করলেও তিনি কুরবানি ঈদকে সামনে রেখে প্রতি বছর তার খামারে ২-১টি বড় আকারের ষাঁড় পালন করেন ।

মাহমুদ হাসান মুক্তা জানান, এ বছর কুরবানি ঈদ উপলক্ষ্য করে শুধু বাহাদুর নামের গরুটিই পালন করেছেন। চার বছর ধরে পরম যত্নে বাহাদুরকে তৈরি করেছেন তিনি। ভূট্টা, জব, খেসারি ও গমের ভূষি সহযোগে তৈরি করা বিশেষ খাবার বাহাদুরের প্রিয়। প্রতিদিন সকাল আর বিকালে প্রয়োজন হয় ৭-৮ কেজি করে। এর সঙ্গে নিয়মিত নিজের জমিতে উৎপাদিত নেপিয়ার ঘাসও খেতে দেওয়া হয় তাকে। নিয়ম করে খাবার খাওয়ানো, পরিচর্যা করার পাশাপাশি একজন পশু চিকিৎসকের পরামর্শে রেখে বাহাদুরকে তৈরি করেছেন তিনি। বাহাদুর এখন উচ্চতায় পাঁচ ফুট ছয় ইঞ্চি আর দৈর্ঘ্যে ৯ ফুট। গরুটি জবাই করলে প্রায় সাড়ে ৩১ মণ মাংস পাওয়া যাবে বলে তিনি জানান।

ক্ষতিকর স্টেরয়েড ব্যবহার প্রসঙ্গে মুক্তা বলেন, কোনো স্টেরয়েড কখনই ব্যবহার করিনি। প্রাকৃতিক খাবার খাইয়েই গরুটি এত বড় করেছি।

তিনি আরও বলেন, অনেক যত্নে বাহাদুরকে লালন করেছি। শৌখিন লোকেরাই বাহাদুরের কদর বুঝবে। তাদের দৃষ্টিতে আনতে পারলে এর দাম কমপক্ষে ১২ লাখ টাকা পাওয়া যাবে। ইতোমধ্যেই তিনি অনলাইন প্লাটফর্ম বিক্রয় ডটকমে গরুটির বিক্রির বিজ্ঞপ্তি দিয়েছেন। বিক্রয় ডটকমে দেখে ইতোমধ্যে অনেকেই দরদাম করছেন বলে তিনি জানান।

জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা বলেন, প্রাণিসম্পদ বিভাগ খামারিদের নতুন নতুন প্রযুক্তি ও প্রয়োজনীয় চিকিৎসাসেবা দেওয়ার পাশাপাশি প্রণোদনা দিচ্ছে। এতে জেলাজুড়ে প্রাণিসম্পদের যথেষ্ট সমৃদ্ধি ঘটেছে। এ বছর জেলায় কুরবানির উপযুক্ত গবাদি পশু রয়েছে তিন লাখ ৬৫ হাজার। আর কুরবানির পশুর চাহিদা রয়েছে দুই লাখ ৩৭ হাজার। অবশিষ্ট এক লাখ ২৮ হাজার পশু জেলার বাইরে বিক্রি করা যাবে।

তিনি আরও জানান, এবার অনলাইন প্লাটফর্মে ৪ হাজার গরু বিক্রির টার্গেট রয়েছে, তার মধ্যে তিন হাজার গরু বিক্রি হয়ে গেছে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি anusandhan24.com'কে জানাতে ই-মেইল করুন- anusondhan24@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

anusandhan24.com'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।



© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। anusandhan24.com | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT