রবিবার ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১লা বৈশাখ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

নির্বাচন কর্মকর্তার বাসায় আ.লীগ নেতা অবরুদ্ধ, উদ্ধার করল পুলিশ

প্রকাশিত : ০৬:৩৩ পূর্বাহ্ণ, ১৯ জুন ২০২৩ সোমবার ৫৪ বার পঠিত

অনলাইন নিউজ ডেক্স :

রাজশাহীর সিনিয়র জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. আবুল হোসেনের বাসায় আওয়ামী লীগের এক নেতাকে অবরুদ্ধ করার ঘটনা ঘটেছে। পরে এই নেতাকে পুলিশ উদ্ধার করেছে। নির্বাচন কর্মকর্তা আবুল হোসেন সিটি নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা।

রোববার রাত ১০টার দিকে নগরীর সাগরপাড়া এলাকায় আবুল হোসেনের বাসায় ঢোকেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মীর ইশতিয়াক আহমেদ লিমন। তখন ছাত্রলীগ ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা তাকে বাসায় অবরুদ্ধ করেন। এরপর রাত ১২টার দিকে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে।

সূত্র জানায়, উদ্ধারের আগ পর্যন্ত বাসাটি ঘিরে রেখেছিলেন ছাত্রলীগ ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। যারা লিমনকে অবরুদ্ধ করেছিলেন তাদের দাবি, লিমনের সঙ্গে আরও দুজন ছিলেন। লিমনকে বাসায় অবরুদ্ধ করার সময় একটি ব্যাগ নিয়ে মোটরসাইকেলে চড়ে তারা পালিয়েছেন।

লিমনের মামা আবদুল হামিদ সরকার টেকন নগরীর ২২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর। আগামী ২১ জুনের নির্বাচনে তিনি প্রার্থী হয়েছেন। লিমনের বাবা মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল। লিমনের আরেক মামা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারসহ এই পরিবারটি এবার সিটি নির্বাচনে নোকার প্রার্থীর জন্য কাজ করছেন না বলে অভিযোগ রয়েছে।

লিমন যখন অবরুদ্ধ ছিলেন, তখন তার বাবা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মীর ইকবালসহ পরিবারের সদস্যরা আসেন। পরিবারের নারী সদস্যরা চিৎকার করে কান্নাকাটি করছিলেন। মীর ইকবাল ভিড়ের মধ্যে ঢোকার চেষ্টা করলে তাকে ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দেওয়া হয়। এ সময় তার ছেলে মীর ইমতিয়াজ বলছিলেন, একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার গায়ে হাত তোলা হলো।

লিমনকে অবরুদ্ধকারী ছাত্রলীগ ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা বাইরে নানা শ্লোগান দিচ্ছিলেন। তারা বলছিলেন, কাউন্সিলর প্রার্থী মামা টেকনকে জেতানো এবং আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থীকে পরাজিত করার জন্য টাকা দিতে এসেছিলেন লিমন।

তবে বাসা থেকে কী উদ্ধার করা হয়েছে- তা জানা যায়নি। তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশ এ ব্যাপারে কোনো কথা বলেনি। পুলিশ নির্বাচন কর্মকর্তার বাসার সামনে অবস্থান করছে। পুলিশ সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা আবুল হোসেনকে নিয়ে যায়নি। তিনি তার বাসায় অবস্থান করছেন।

এ ব্যাপারে নগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার ওসি সোহরাওয়ার্দি হোসেন বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে। অবরুদ্ধ আওয়ামী লীগ নেতা লিমনকে পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে। ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনার পর এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি anusandhan24.com'কে জানাতে ই-মেইল করুন- anusondhan24@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

anusandhan24.com'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।



© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। anusandhan24.com | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT