বুধবার ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম

তক্ষক বিক্রির ফাঁদ পেতে লাখ লাখ টাকা মুক্তিপণ আদায়

প্রকাশিত : ০১:১১ অপরাহ্ণ, ২৮ নভেম্বর ২০২০ শনিবার ২১৩ বার পঠিত

অনলাইন নিউজ ডেক্স :

তক্ষক নামমাত্র মূল্যে বিক্রির লোভ দেখিয়ে জিম্মির মাধ্যমে মুক্তিপণ আদায় করতে চট্টগ্রামের পাহাড়ি অঞ্চলগুলোতে গড়ে উঠেছে ৮টি অপহরকারী চক্র। অনেকে এই দলের কবলে পড়ে সর্বস্ব হারাচ্ছেন। বাণিজ্যিক মূল্য না থাকা সত্ত্বেও শুধু গুজব রটিয়ে বিলুপ্ত প্রায় প্রাণীটি ৭ থেকে ২০ লাখ টাকায় বিক্রি করছে তারা।

প্রলোভন দেখিয়ে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে নিয়ে আসা হয় চট্টগ্রামের ভুজপুর-খাগড়াছড়ির রামগড়ের পাহাড়ি অঞ্চলে। এরপর জিম্মি করে আদায় করছে লাখ লাখ টাকার মুক্তিপণ। এ ধরনের অন্তত ৪০ জনের বিস্তারিত বিবরণ পেয়েছে পিবিআই।

চট্টগ্রাম পিবিআইয়ের পুলিশ সুপার নাজমুল হাসান বলেন, যা কিনতে আসছেন তারাও কোনো সহায়তা নিচ্ছেন না, কারণ এটা অবৈধ। দু’পক্ষই এখানে উইন উইন সিচুয়েশনে ব্যবসাটা করে যাচ্ছে।
এদিকে ৭ থেকে ১০ লাখ টাকার বিনিময়ে ঢাকায় তক্ষক বিক্রি করছে বান্দরবানভিত্তিক আরেকটি গ্রুপ। টাকা পাওয়ার পর ক্যারিয়ার দিয়ে তারা তক্ষক ঢাকায় পৌঁছে দিচ্ছে। শাহ আমানত সেতু এলাকা থেকে দুটি তক্ষকসহ দুজনকে আটকের পর পাওয়া গেছে তক্ষক বেচাকেনার চাঞ্চল্যকর তথ্য।

সিএমপির সহকারী কমিশনার (কর্ণফুলী) ইয়াসির আরাফাত বলেন, এটা বান্দরবান থেকে ঢাকাতে যায়। এর মাঝামাঝি একটা পার্টি এটা পাচার করে দেওয়ার দায়িত্বে ছিলেন।

পটিয়া রেঞ্জের বন কর্মকর্তা মিজানুর রহমান বলেন, ৩ থেকে ৬ লক্ষাধিক টাকায় তারা এগুলো বিক্রি করে। পুলিশের তথ্য অনুযায়ী, চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি-ভুজপুর-হেঁয়াকো এবং খাগড়াছড়ির রামগড়ের দুর্গম নূরপুর পাহাড় এবং লালটিলা এলাকায় রয়েছে ৪টি অপহরণকারী দলের শক্ত অবস্থান।

চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন বলেন, এর সঙ্গে যারা জড়িত তাদের সবাইকে আমরা গ্রেফতার করব। এরা সাধারণ মানুষকে প্রতারণার ফাঁদে ফেলছেন।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি anusandhan24.com'কে জানাতে ই-মেইল করুন- anusondhan24@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

anusandhan24.com'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। anusandhan24.com | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT